ডাক্তারি পরামর্শ লাইফস্টাইল

ব্যায়ামের বিকল্প হিসেবে সিঁড়ি ব্যবহার

Up the stairs

ব্যায়াম শরীরকে সুস্থ রাখতে সহায়তা করে। যাঁরা ব্যায়াম করতে সময় পান না, তাঁরা ব্যায়ামের বিকল্প হিসেবে সিঁড়ি ব্যবহার করতে পারেন। বিশেষ করে যাঁরা এক জায়গায় দীর্ঘ সময় বসে কাজ করেন। সিঁড়ি ব্যবহার শারীরিক ব্যায়ামের মতো কাজ করে। দেহ সুস্থ-সবল রাখতেও সহায়তা করে।

কখন, কিভাবে ব্যায়াম করবেন ???

*দিনে দুবার নিয়ম করে সিঁড়ি ব্যবহার করতে পারেন। সেটা সকালে ১৫ মিনিট ও বিকেলে ১৫ মিনিট হতে পারে। তবে আস্তেধীরে থেমে থেমে নয়। বিশ্রাম না নিয়ে ধাপে ধাপে উঠে যাবেন।

*একটানা সর্বোচ্চ চার অথবা পাঁচতলা পর্যন্ত উঠতে পারলেই যথেষ্ট। প্রথমে কষ্ট হলেও আস্তে আস্তে অভ্যাস হয়ে যাবে।

*অনেক সময় পায়ের পেশিতে টান পড়তে পারে। সে ক্ষেত্রে একটু থেমে বিশ্রাম নিয়ে আবার উঠুন।

উপকারিতাঃ

অল্প সময়ে দ্রুত ক্যালরি ক্ষয়ঃ দিনে দুবার পাঁচতলা পর্যন্ত সিঁড়ি দিয়ে ওঠানামা করার ফলে প্রায় ৪ পাউন্ড ওজন কমে মাত্র দেড় মাসে। সিঁড়ি ব্যবহারে নিজের ওজন টেনে ওপরে তুলতে হয়। এতে খুব দ্রুতই অনেক বেশি ক্যালরি ক্ষয় হয়। আর তাতেই ওজন কমে।

হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়ঃ সিঁড়ির ব্যবহার হৃদরোগের আশঙ্কা অনেকাংশে কমে। সিঁড়ি দিয়ে ওপরে ওঠা বা নিচে নামার সময় হৃদস্পন্দনের হার বেড়ে যায়। এতে কার্ডিওভাস্কুলার সিস্টেম উন্নত হয়।মাংসপেশি সুগঠিত ও

শক্তিশালী করেঃ সিঁড়ি ব্যবহার করলে দেহের মাংসপেশি সুগঠিত ও ভেতর থেকে শক্তিশালী করে। এতে মাংসপেশির প্রদাহ কিংবা আড়ষ্টতাজনিত সমস্যা দূর হয়। বিশেষ করে পায়ের মাংসপেশি অনেক সুগঠিত হয়।

সতর্কতাঃ

►যাঁদের ব্যাকপেইন ও আর্থ্রাইটিস আছে, তাঁরা ডাক্তারের পরামর্শ মেনে সিঁড়ির ব্যায়াম করবেন।

►খাওয়ার আধা ঘণ্টা আগে ও পরে সিঁড়ির ব্যায়াম করা যাবে না।

ফেসবুক মতামত

জন মত দিয়েছেন

Show Buttons
Hide Buttons

সর্বশেষ খবর জানতে ফেসবুক এ আমাদের সাথে থাকুন

আমরা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন খবর সংগ্রহ করে থাকি আপনারই জন্য। আমরা চাই আপনারা জানুন "সদ্য সংবাদ, সবার আগে"।


সর্বশেষ খবর জানতে ফেসবুক এ আমাদের সাথে থাকুন

আমরা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন খবর সংগ্রহ করে থাকি আপনারই জন্য। আমরা চাই আপনারা জানুন "সদ্য সংবাদ, সবার আগে"।